আজ শনিবার, ৭ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬           আমাদের কথা    যোগাযোগ
Owner

শিরোনাম

  জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল কপোতাক্ষ নিউজের জন্য বাংলাদেশের প্রতিটি জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহী প্রার্থীরা ০১৭১৯২৮০৮২৭ নাম্বারে যোগাযোগ করুন।  

আবার দেখা হবে কিন্তু কথা হবেনা


আবার দেখা হবে কিন্তু কথা হবেনা

প্রকাশিতঃ শনিবার, নভেম্বর ২, ২০১৯   পঠিতঃ 69552


যে যার মতো এগিয়ে গেছে, শুধু থেকে গেছে কাঠের বেঞ্চে স্টিলের স্কেল দিয়ে লেখা নামগুলো। কথাটা কে লিখেছিল জানি না।

কিন্তু কথাটা মনে পড়তেই আমার দুই চোখে শামীমার ছবি ভেসে ওঠে। প্রিয় শামীমা, তুমি হয়তো কখনো জানতে পারবে না, ছয় বছর আগের এই পুরনো বন্ধুটার বুকের ভেতর তুমি এখনো কতটা জায়গা জুড়ে আছ। জীবনের গতিপথে হারিয়ে গেছ ঠিকই; কিন্তু প্রথম কৈশোরে তোমার চোখের দিকে তাকিয়ে যে শীতলতা অনুভব করতাম, সে অনুভূতিগুলো আজও চির সবুজ হয়ে আছে। মাঝেমধ্যে সৃষ্টিকর্তার কাছে প্রার্থনা করি, জীবনের কোনো এক লগ্নে যেন আমাদের আবার দেখা হয়ে যায়। তোমার নামটা কত যত্নে বুকের ভেতর এঁকে রেখেছি, তা মাঝেমধ্যে তোমাকে খুব দেখাতে ইচ্ছা করে।
ক্লাস নাইনে শামীমা আর আমি একসঙ্গে পড়তাম। ছেলেবেলার সেই সোনালি দিনগুলো স্বপ্নের মতো ছিল। ক্লাসে আমরা প্রতিদিন পাশাপাশি বেঞ্চে বসতাম। পড়ার ফাঁকে ফাঁকে লুকিয়ে তাকানো, চোখে চোখ পড়া, তারপর মুচকি হাসিতে মুখ ফিরিয়ে নেওয়ার মাঝে কী এক মহিমা লুকিয়ে ছিল, কী এক পূর্ণতা লুকিয়ে ছিল, যা আজও আমি খুঁজে বেড়াই।

কৈশোরের সেই সাধারণ চোখে চোখ পড়াতে বুকের ভেতর যে কাঁপন হতো সেটা আজও অনুভব করি।শামীমা আর আমার ভীষণ পাখি হওয়ার শখ ছিল। দুই হাত উঁচু করে আমাদের কল্পনার নীল আকাশে শামীমা আর আমি আমাদের রঙিন ডানায় কতগুলো বিকেল যে উড়ে বেড়িয়েছি তার ঠিক নেই। আমার একটা সবুজ রঙের টিয়া পাখি ছিল। আমি রোজ তাকে শামীমা নাম ধরে ডাকা শিখাতাম। শামীমা মাঝেমধ্যে আমাদের বাড়িতে আসত। টিয়া পাখির খাঁচায় হাত দিয়ে বলত ‘বলো তো টিয়া পাখি, আমার নাম কী?’ আমার পোষা টিয়া তখন ‘শামীমা! শামীমা!’ করে ডেকে উঠত। শামীমার অধরজুড়ে লাল লিপস্টিকের রংএ তখন ছড়িয়ে পড়ত কী এক অপূর্ব হাসি।

শামীমা ছিল খুব চঞ্চল মেয়ে, সারাটা দিন চঞ্চলতায় মেতে থাকত। আমি ওকে প্রজাপতি বলে ডাকতাম। পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দর ও পবিত্র প্রজাপতি।

এ নামে ডাকতাম বলে শামীমা একদিন দুপুরে আমাকে একটা প্রজাপতি উপহার দিয়েছিল। নীল সবুজের ডানায় অপূর্ব সুন্দর এক প্রজাপতি। টিফিন বক্সে করে প্রজাপতিটা আমার হাতে ধরিয়ে দিয়ে বলেছিল ‘এটা হলো পৃথিবীর সবচেয়ে সুন্দর প্রজাপতি, খুব যত্ন করে রাখবে। কখনো উড়ে যেতে দিয়ো না। ’ কিন্তু আমি পারিনি। প্রিয় প্রজাপতিটাকে আমার নীল আকাশে ধরে রাখতে পারিনি।২০১৪ইং সালের ডিসেম্বরের শেষে এক পাতাঝরা সকালে শামীমা আমার ছোট্ট সাজানো আকাশ থেকে অনেকটা দূরে হারিয়ে যায়।

শামীমার বাবা ছিলেন সরকারী চাকুরীজীবি। বদলি হয়ে চলে যায় দূরের এক অচেনা শহরে। সেই সঙ্গে চলে যায় । বার্ষিক পরীক্ষার সেই ছুটির রঙিন দিনগুলো সেদিন কেমন যেন বিষণ্ন হয়ে গিয়েছিল। যাওয়ার আগে শামীমা আর আমি অনেকক্ষণ দাঁড়িয়ে ছিলাম ওদের ভাড়া বাড়ির বেলকনিতে। একসময় শামীমা আকাশের দিকে তাকিয়ে বলেছিল ‘দেখো আকাশ, আমাদের একসময় ঠিকই দেখা হবে। অনেক দিন হারিয়ে থাকার পর একদিন আমরা আমাদের আবার খুঁজে পাব। ’ আমি কিছুই বলিনি সেদিন। প্রচণ্ড অভিমান করে ফিরে এসেছিলাম। সেদিন শামীমার সঙ্গে মুক্ত করে দিয়েছিলাম খাঁচায় পুষে রাখা প্রিয় টিয়াকেও।

এরপর পেরিয়ে গেছে অনেকটা দিন, অনেকটা প্রহর। সেই কচি মুখে নির্মল হাসি, নিষ্পাপ চাহনি সব কিছু বুকের আলমারিতে সাজানো আছে। আজও শামীমার শেষ কথাগুলো আমার কানে বাজে। আমার খুব বিশ্বাস করতে ইচ্ছা করে, এই হারিয়ে যাওয়া দিনগুলোর পর আমরা আমাদের আবার খুঁজে পাব। জীবনের কোনো এক লগ্নে আমাদের আবার দেখা হবে কিন্তু কথা হবেনা।কারণ হয়তো আমার মতো শামীমার পথও এতোদিনে গেছে অন্য গতিপথে। 

লেখক, 
মোঃ শাহ্ জালাল. 
একজন গণমাধ্যম কর্মী ও সাবেক ছাত্রনেতা।

শাহ্‌ জালাল / ইসরাফিল হোসেন


মন্তব্য করুন

বিএনপি যে স্বাধীনতাবিরোধী চক্র সেটি তারা তাদের আচরণের মধ্য দিয়ে প্রমাণ করে: শিক্ষামন্ত্রী

আজকের দিনটি বাংলাদেশ ও ভারতের জন্য স্মরণীয় ও ঐতিহাসিক: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

কে হচ্ছেন বরিশাল আওয়ামী লীগের সভাপতি?

আদালতে বিএনপিপন্থি আইনজীবীদের আচরণ ক্ষমার অযোগ্য: ওবায়দুল কাদের

বাংলাদেশে কিডনি ট্রান্সপ্ল্যান্ট: আদালতের নির্দেশনায় মানুষ উপকৃত হবে

ভারতে গণধর্ষণে অভিযুক্ত ৪ জনকে গুলি করে হত্যা, মিশ্র প্রতিক্রিয়া

বিএনপি নয়, সরকারই আদালত অবমাননা করেছে: মির্জা ফখরুল

পৃথিবীর অনেক দেশের তুলনায় আমরা অনেক মেধাবী: তথ্যমন্ত্রী

ঐতিহাসিক যশোরমুক্ত দিবস উদযাপিত

মহেশপুরের ঐতিহ্যবাহী ইছামতি নদী দখল করে মাছ চাষ করছেন আ’লীগ নেতার ছেলে

ঠাকুরগাঁও জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে কুরাইশী-দীপক

কপোতাক্ষ নিউজের মনিরামপুরের খানপুর প্রতিনিধি আ: রউফের পিতার মৃত্যু

কালীগঞ্জে সুপারি গাছ থেকে পড়ে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে সিয়াম!

কারাগার থেকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র এহসান হাবিব সুমন এর খোলা চিঠি

যেকোন সময় ঘোষণা হতে পারে ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটি

এসএসসি পরীক্ষাঃ বাংলা দ্বিতীয় পত্রে বেশি নম্বর সহজেই...

৫০ বছর ধরে দল করেও সুবিধা বঞ্চিত আ'লীগের প্রচার সম্পাদক নূরুল হক

যশোরের রাজগঞ্জে ৫৬ যুবকের উদ্যোগে ভাসমান সেতু র্নিমাণ

কেশবপুরের শাহীনের সেই ভ্যানটি উদ্ধার, আটক তিনজন

নোংরা রাজনীতির শিকার যশোরের এমপি স্বপনের ছেলে শুভ

লালমনিরহাটে এক বিধবা মা বাইসাইকেল চালিয়ে ৪২ বছর স্বাস্থ্যসেবা দিচ্ছেন

নারী সহকারীর সঙ্গে ডিসির অশ্লীল ভিডিও ভাইরাল, সংবাদ না করার অনুরোধ

আমি চাই আমাকে দেখে আর দশটা মেয়ে সমাজে প্রতিষ্ঠিত হোক - শ্রাবন্তী অনন্যা

বিএনপি নেতা আবু বকর আবু’র জানাজায় হাজারো মানুষের ঢল

আপনার কাছে জনপ্রিয় খেলা কোনটা ?

  ক্রিকেট

  ফুটবল

  ভলিবল

  কাবাডি

অফিস ঠিকানা  

আর এল পোল্ট্রি, উপজেলা রোড, কেশবপুর বাজার, যশোর।
মোবাইলঃ   ০১৭১৯২৮০৮২৭
ইমেইলঃ   info@kopotakkhonews24.com

প্রকাশক ও সম্পাদক 

মোঃ মাহাবুবুর রহমান (মাহাবুর)

মোবাইলঃ   ০১৭১৯২৮০৮২৭
ইমেইলঃ   info@kopotakkhonews24.com

সোশ্যাল মিডিয়ায় আমরা